‘মা কে? নিজের মা আর ভারতমাতা ছাড়া অন্য কেও আমার মা না’- গেরুয়া মঞ্চে নাম না করে মমতাকে বিঁধলেন শুভেন্দু! - Nadia24x7

Breaking

Home Top Ad

Post Top Ad

Monday, December 21, 2020

‘মা কে? নিজের মা আর ভারতমাতা ছাড়া অন্য কেও আমার মা না’- গেরুয়া মঞ্চে নাম না করে মমতাকে বিঁধলেন শুভেন্দু!

 


আমি মা এর সাথে বিশ্বাসঘাতক করিনি । বক্তা শুভেন্দু অধিকারী । সব জল্পনার অবসান ঘটিয়ে তৃণমূল থেকে পদত্যাগ দিয়ে বিজেপিতে যোগ দিলেন শুভেন্দু অধিকারী ।৩৫ টি পদে তিনি ছিলেন বলে জানা গেছে । গত ১৫ দিন ধরে সমস্ত পদ থেকে ধীরে ধীরে ইস্তফা দিয়ে অবশেষে গেরুয়া শিবিরের নাম লেখালেন প্রাক্তন পরিবহনমন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী। তার পাশাপাশি জামা পাল্টাতে শুরু করে দিলেন শাসকদলের বিরুদ্ধে ক্ষোভ।

প্রথমে তিনি অমিত শাহ এর হাত থেকে দলীয় পতাকা পতাকা নিয়ে সরকারিভাবে বিজেপিতে যোগ দেন এবং পরবর্তীকালে বক্তৃতা দিয়ে তিনি প্রথমেই বলেন দুর্নীতিবাজ ভাইপো হাঁটাও । শুধুমাত্র এটি বলে তিনি থেমে গেছে এমনটা নয় । তার পাশাপাশি যাবতীয় কাজকর্ম যেটি শুভেন্দুর পক্ষে ক্ষতিকর বলে মনে করা হয়েছিল এবং এগুলি তৃণমূল সরকার করেছিল সে সমস্ত কিছু তিনি তুলে ধরেন ওই দিন তার মন্তব্যের মাধ্যমে।

ঐদিন বক্তৃতা দেন তিনি বলেন যে ” তৃণমূল আমাকে বলছে যে মায়ের সাথে বিশ্বাসঘাতকতা করেছেন। আপনারাই বলুন আমার মা কে ? যিনি জন্মদাত্রী তিনি একমাত্র মা হন । আমার মায়ের নাম গায়ত্রী অধিকারী । তার পাশাপাশি যদি কাউকে মা বলতে হয় তাহলে আমি ভারতমাতাকে মা বলব । যেটি বলে গিয়েছিলেন স্বামী বিবেকানন্দ ” ।

এর পাশাপাশি তিনি তৃণমূলের বিরুদ্ধে একরাশ ক্ষোভ উগরে দেয় বলেন যে ” কেন্দ্রের প্রকল্পের নাম পরিবর্তন করে এখানে সেই সমস্ত সুবিধা চালু হতে দিচ্ছে না তৃণমূল সরকার । বেকারত্ব বেড়ে চলেছে অর্থনীতি ভেঙে পড়েছে । এই মত অবস্থায় বাংলাকে বাঁচাতে হলে মোদিজীর হাতে তুলে দিতেই হবে আর এই জন্য আমি প্রস্তুত।

তবে শুভেন্দু অধিকারী এভাবে দল পরিবর্তন করা তো অনেকেই বিক্ষুব্ধ হয়েছেন । এবং তার প্রতিবাদ চিত্র আমরা এর আগে রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তরে সংবাদ মাধ্যমের মধ্যে দেখেছিলাম । কোথাও জ্বলেছিল আগুন । কোথাও পড়ানো হয়েছিল জুতোর মালা । কোথাও আবার মীরজাফর নাম দিয়ে টাঙ্গানো হয়েছিল ব্যানার । সবকিছু মিলিয়ে এই মুহূর্তে রাজনৈতিক মহল উত্তপ্ত ভীষণভাবে ।

Post Bottom Ad