Wednesday, April 15, 2020

মুখ্যমন্ত্রীর ঘোষণা, রাজ্যে লকডাউনে ছাড় একাধিক ক্ষেত্রে, একাদশ শ্রেণির সব পড়ুয়া পাশ


রাজ্যে প্রথম পর্যায়ের লকডাউন শেষে দ্বিতীয় পর্যায়ের লকডাউন শুরু হয়েছে। এই পর্যায়ে বেশ ক্ষেত্রে  ছাড় দিল রাজ্য সরকার।  বুধবার সাংবাদিক সম্মেলন করে সেকথা জানালেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কৃষি, ছোটো শিল্প তালুকের ক্ষেত্রে ছাড় দেওয়া হয়েছে। লকডাউনের থেকে ছাড় রয়েছে একশো দিনের কাজের ক্ষেত্রেও।
 
রাজ্যের যে যে পরিসরগুলি লকডাউনের বাইরে রাখা হল,
_
ডেপুটি সেক্রেটারি স্তরের আধিকারিকরা কাজ করবেন
_
গ্রামীণ শিল্প চালু করা যেতে পারে
_
ছোটো শিল্পতালুক চালু করা যেতে পারে
_
২০ এপ্রিলের পর একশো দিনের কাজ শুরু করা যেতে পারে
_
প্রত্যেক ক্ষেত্রে ১৫ শতাংশ শ্রমিক কাজে লাগানো হবে
_
ভিন রাজ্যের শ্রমিকদের - দিন ছেড়ে দেওয়া হবে
_
রাজ্যের সব কটি জুটমিলে কাজ শুরু করা যেতে পারে, তবে বেশ কিছু নিয়ম মেনে
তবে আইসিডিএস সেন্টার ১৫ মে পর্যন্ত বন্ধ থাকবে বলে ঘোষণা করেন তিনি
শিক্ষাক্ষেত্রেও বেশ কিছু ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী।
মাধ্যমিক পরীক্ষা হয়ে গিয়েছে, উচ্চ মাধ্যমিকের বাকি পরীক্ষা জুন মাসে
একাদশ শ্রেণির সব ছাত্রছাত্রীদের প্রোমোশন দেওয়া হবে
কলেজ পড়ুয়ারা শুধু ফাইনাল সেমিস্টার দেবে
কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয়ের একটা করে সেমিস্টার এগিয়ে যাবে
এছাড়াও করোনা নিয়ে রাজ্যের বর্তমান পরিস্থিতি পরিসংখ্যান দিয়ে জানান মুখ্যমন্ত্রী
এরাজ্যে করোনা আক্রান্ত ১৩২জন
মৃতের সংখ্যা
রাজ্যে ৪১৫৭ জন সরকারি কোয়ারেন্টিন সেন্টারে রয়েছেন
৩৭, ৬৯১ জন হোম কোয়ারেন্টিনে রয়েছেন
এখনও পর্যন্ত ৪২ জন সুস্থ হয়েছেন
নতুন করে আক্রান্ত ১৭ জন

এদিন মুখ্যমন্ত্রী আবারও রাজ্যবাসীকে মাস্ক ব্যবহারের জন্য আবেদন করেন। মাস্ক না পরলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও সতর্ক করেন তিনি। মুখ্যমন্ত্রী বলেন, "অনেকেই বলছেন রাজ্য মৃতের সংখ্যা গোপন করছে। কিন্তু অনেকেই হাসপাতালে আসছেন শেষ পর্যায়ে। অনেকেই অন্য কঠিন রোগে আক্রান্ত, তাঁদের অনেকক্ষেত্রে বাঁচানো সম্ভব হচ্ছে না।" তিনি বলেন, "করোনায় মৃত্যু নিয়ে বিভ্রান্তি ছড়াচ্ছেন অনেকে। কেউ কেউ ঘোলা জলে মাছ ধরার চেষ্টা করছেন। করোনার মৃত্যু নিয়ে বিভ্রান্তি ছড়ালে গ্রেফতার করা হবে। বরদাস্ত করা হবে না কোনও রাজনীতি। আমাদের উচিত্ একসঙ্গে এই পরিস্থিতির মোকাবিলা করা।"

উল্লেখ্য, রাজ্যপাল এদিন টুইট করে রাজ্যে লকডাউন সফল করতে প্যারা মিলিটারি ফোর্স নামানোর পক্ষে সওয়াল করেন। তাঁর উত্তরে এদিন মুখ্যমন্ত্রী বলেন, "প্যারা মিলিটারি ফোর্সের কথা বলছেন কেউ কেউ। প্যারা মিলিটারি ফোর্স কী করবে? "


SHARE THIS

Author:

Etiam at libero iaculis, mollis justo non, blandit augue. Vestibulum sit amet sodales est, a lacinia ex. Suspendisse vel enim sagittis, volutpat sem eget, condimentum sem.